September 18, 2021

দৈনিক প্রথম কথা

বাংলাদেশের জাতীয় দৈনিক

ডালাসে মহানবীর কার্টুন প্রদর্শনীতে গুলি, নিহত ২

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : যুক্তরাষ্ট্রের ডালাস শহরে কার্টুন প্রদর্শনীর বাইরে দুই বন্দুকধারীকে গুলি করে হত্যা করেছে পুলিশ। এ ঘটনায় আহত হয়েছে এক নিরাপত্তা রক্ষী। রোববার ডালাসের গারল্যান্ড উপশহরের কুর্টিস চুলওয়েল সেন্টারে ওই প্রদর্শনীতে সমবেত হয়েছিলেন মহানবী হজরত (স.)’র ওপর কার্টুন আঁকিয়েরা। সেখানে আরো উপস্থিত ছিলেন ইসলাম বিরোধী ডাচ রাজনীতিবিদ গির্ট উইল্ডার্স।

রোববার ওই প্রদর্শনীর বাইরে কয়েক রাউন্ড গুলি চালায় ওই দুই বন্দুকধারী। পরে পুলিশের গুলিতে তারা নিহত হয়। তারা কী উদ্দেশে সেখানে গুলি চালিয়েছিল তাৎক্ষণিকভাবে তা জানা যায়নি। এছাড়া ওই প্রদর্শনীর সঙ্গে এ ঘটনার কোনো সম্পর্ক রয়েছে কীনা তাও জানা যায়নি।

এ ঘটনার পর পুলিশ কুর্টিস চুলওয়েল সেন্টারটি চারদিক থেকে ঘিরে ফেলে এবং অনুষ্ঠানে আগতদের ঘটনাস্থল ত্যাগ করতে নিষেধ করে। পুলিশ প্রহরায় পরে প্রদর্শনীতে আগত ৭৫ জনকে অন্য কক্ষে সরিয়ে নেয়া হয়। পাশের এক স্কুলে নিয়ে যাওয়া হয় আরো ৪৮ জনকে।

এক প্রত্যক্ষদর্শী সংবাদ সংস্থা এপি’কে জানিয়েছেন, তিনি সমাবেশের বাইরে থেকে কমপক্ষে ২০টি গুলির শব্দ শুনতে পেয়েছিলেন। পরে আরো দুটি গুলির শব্দ শোনা যায়।

ডালাসে এই সমাবেশের আয়োজন করেছিলেন ‘আমেরিকান ফিডম ডিফেন্স ইনেশিয়েটিভ’ নামের এক সংগঠন। এই সংগঠনটি বরাবরই ইসলাম ধর্মাবলম্বীদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন প্রচারণায় ইন্ধন জুগিয়ে থাকে। এর আগে তারা নিউইয়র্কের ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টারের পাশে একটি ইসলামিক সেন্টার প্রতিষ্ঠার বিরুদ্ধে প্রচারণা চালিয়েছিল।

রোববারের ওই প্রদর্শনীতে মোহাম্মদ(স.)য়ের ওপর আঁকা সেরা কার্টুনের জন্য ১০ হাজার মার্কেন ডলার পুরস্কার ঘোষনা করা হয়।

ইসলাম ধর্মে মহানবীর কোনো ধরনের ছবি আঁকাকে সমর্থন করে না। মুসলিমদের দৃষ্টিতে এটি বেদাত হিসেবে বিবেচিত। গত জানুয়ারিতে মহানবীর ব্যঙ্গচিত্র আঁকার প্রতিবাদে ব্যঙ্গাত্মক সাময়িকী শার্লি এবদোর প্যারিস কার্যালয়ে হামলা চালায় দুই বন্দুকধারী। হামলায় পত্রিকার সম্পাদকসহ ১২ জন নিহত হয়।