September 18, 2021

দৈনিক প্রথম কথা

বাংলাদেশের জাতীয় দৈনিক

কসবা সীমান্ত হাট উদ্বোধন করবেন হাসিনা-মোদি

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি : দীর্ঘ প্রতীক্ষার পর ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবায় যাত্রা শুরু করছে সীমান্ত হাট। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে ৬ অথবা ৭ জুন এ সীমান্ত হাটের উদ্বোধন করবেন।

কসবা সীমান্ত হাটের নির্মাণকাজ এরই মধ্যে শেষ হয়েছে। ২০১৪ সালের ২১ মে কসবা সীমান্তের ২০৩৯ নম্বর ডপলার সংলগ্ন কমলা সাগরদীঘির উত্তরপাড়ে তারাপুর এলাকায় এ হাটের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করা হয়। তিন মাসের মধ্যে এর কাজ সম্পন্ন হওয়ার কথা থাকলেও বিভিন্ন কারণে তা পিছিয়ে যায়। বাংলাদেশের ৬৯ দশমিক ৬৬ শতাংশ ও ভারতের ৬৯ দশমিক ৬৬ শতাংশ ভূমিতে বাংলাদেশি দুই কোটি ৪৪ লাখ টাকায় এ হাট নির্মিত হয়েছে।

সীমান্ত হাটে বাংলাদেশের ১৫ ও ভারতের ১৬টি পণ্য স্থান পাবে। বাংলাদেশ থেকে হাটে বিক্রির জন্য
অনুমোদিত পণ্যসামগ্রীর মধ্যে রয়েছে বিস্কুট, লুঙ্গি, ফলমূল, স্থানীয় কুটিরশিল্পে উৎপাদিত সামগ্রী ইত্যাদি। ভারত থেকে সীমান্ত হাটে বিক্রির জন্য অনুমোদিত পণ্যসামগ্রীর মধ্যে রয়েছে শাক-সবজি, ফলমূল, মসলাজাতীয় দ্রব্য, বনজ ও কুটিরশিল্পে উৎপাদিত দ্রব্য, কৃষি উপকরণ, চা, এলুমিনিয়াম সামগ্রী ইত্যাদি।

কসবা পৌরসভার মেয়র মো. ইলিয়াছ আলী জানান, সীমান্ত হাট প্রতি সপ্তাহে একদিন বসবে। প্রতি বৃস্পতিবার ওই হাট বসবে। সীমান্ত হাটে বাংলাদেশের ২৫ জন ও ভারতের ২৫ জন ব্যবসায়ী নির্ধারিত পণ্য বিক্রি করতে পারবেন। বাংলাদেশ সময় সকাল ১০টা থেকে বিকেল সাড়ে তিনটা পর্যন্ত হাটের কার্যক্রম চলবে।

বিজিবির ১২ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল মো. নজরুল ইসলাম বলেন, “এই হাটে যাতে অবৈধ কোনো পণ্য না আসে, সেদিকে আমাদের দৃষ্টি থাকবে।