December 6, 2021

দৈনিক প্রথম কথা

বাংলাদেশের জাতীয় দৈনিক

৭ শ’র বেশি সাগরভাসীকে বাংলাদেশে পুশ-ইন’র চেষ্টা

বিদেশ ডেস্ক : ৭ শ’রও বেশি অভিবাসন প্রত্যাশী সাগরভাসীদের একটি নৌকা উত্তর-পূর্বাঞ্চলে রাখাইন রাজ্য থেকে বাংলাদেশ সীমান্তে পুশ-ইনের চেষ্টা করছে মিয়ানমার। সাগরে আটকে থাকা অবৈধ অভিবাসন প্রত্যাশীদের অধিকাংশই বাংলাদেশি বলে দাবি তাদের। কিছুদিন ‘গোপন’ স্থানে রাখার পর এখন তাদের বাংলাদেশে পাঠানোর চেষ্টা চলছে। তীরে ওঠানোর পর অভিবাসীদের বাংলাদেশ সীমান্তের কাছে নিয়ে যাওয়া হয়েছে বলে জানা গেছে।

রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে আজ বৃহস্পতিবার এই তথ্য প্রকাশিত হয়।

অভিবাসী সংকট সমাধানের লক্ষ্যে যুক্তরাষ্ট্র গতকাল বুধবার রাখাইনের মুসলিম রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীকে নাগরিক হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়ার আহ্বান জানায় মিয়ানমারের প্রতি। এর মধ্যেই মিয়ানমার অভিবাসীদের বাংলাদেশে পাঠানোর চেষ্টা করছে। যদিও মিয়ানমার সরকারের দাবি, তারা পরিচয় নিশ্চিত করেই বাংলাদেশি ও রোহিঙ্গাদের আলাদা করেছে। এরপরই বাংলাদেশিদের নিজ দেশে পাঠানোর চেষ্টা করা হচ্ছে।

এ বিষয়ে বাংলাদেশ পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মতামত এখনও পাওয়া যায়নি।

এর আগে মিয়ানমার দাবি করেছিল, সাগরে বেশ কয়েকদিন ধরে ভাসমান ৭ শ’র বেশি অভিবাসীবাহী একটি নৌকাকে অজ্ঞাত স্থানে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। তারা আরও দাবি করেন, ‘নিরাপত্তার’ খাতিরে ওই স্থানটির নাম প্রকাশ করা হচ্ছে না।

মিয়ানমারে সাম্প্রদায়িক ও সামাজিক বৈষম্যের শিকার রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠী অবৈধপথে বাংলাদেশে আসার চেষ্টা করে। সম্প্রতি মানবপাচারকারীদের হাতে পরে সাগরপথে মালয়েশিয়া, থাইল্যান্ড ও ইন্দোনেশিয়ার যাওয়ার চেষ্টা করে ধরা পড়েছে অনেকে। সাগরে উদ্ধার হওয়া নৌকাগুলোর মধ্যে অনেক বাংলাদেশিও রয়েছে। আর্থিক স্বচ্ছলতার আশায় বিদেশে যাওয়ার পথে ও অপহৃত হয়ে অনেক বাংলাদেশিও সাগরে ধরা পড়েছে।