September 28, 2021

দৈনিক প্রথম কথা

বাংলাদেশের জাতীয় দৈনিক

আয়-ব্যয়ের হিসাব দিতে ৪০ দলকে ইসির চিঠি

নিজস্ব প্রতিবেদক : নিবন্ধিত ৪০টি রাজনৈতিক দলকে আয়-ব্যয়ের হিসাব দাখিলের নির্দেশ দিয়ে চিঠি দিয়েছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)।

ডাকযোগে বা বিশেষ বাহকের মাধ্যমে আগামী ৩১ জুলাইয়ের মধ্যে বিগত বছরের আয়-ব্যয়ের সব হিসাব পাঠানোর নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। তবে নিবন্ধন অবৈধ হওয়ার কারণে এবারও বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামকে চিঠি দেয়নি ইসি।

বুধবার ইসির উপ-সচিব মু. আবদুল অদুদ নিবন্ধিত দলগুলোর মহাসচিব বা সম্পাদক বরাবর চিঠি পাঠিয়ে দিয়েছেন বলে জানিয়েছে দুদক।

আইন অনুযায়ী, দলগুলোকে প্রতিবছর ৩১ জুলাইয়ের মধ্যে বিগত অর্থবছরের আয়-ব্যয়ের হিসাব জমা দিতে হয়। পরপর তিন বছর কোনো দল হিসাব জমা না দিলে সংশ্লিষ্ট দলের নিবন্ধন বাতিলের বিধান রয়েছে।

চিঠিতে দলগুলোকে অডিট ফার্ম দিয়ে প্রত্যয়ন করা ২০১৪-১৫ অর্থবছরের আয়-ব্যয়ের হিসাব দাখিল করতে বলা হয়েছে। এতে দু’টি ছকে মোট ২০ ধরনের তথ্য সংযুক্ত করতে হবে।

তথ্যগুলো হল: কর্মী বা সদস্যের চাঁদা, কার্যনির্বাহী কমিটি বা উপদেষ্টা পরিষদের চাঁদা বা অন্যান্য চাঁদা, বিভিন্ন ব্যক্তি বা সংস্থার অনুদান, নির্বাচনের সময় প্রার্থীদের অনুদান, বাড়ি ভাড়া ও অন্যান্য সম্পত্তি থেকে প্রাপ্ত অর্থ, দলের পত্রিকা বা বই পুস্তক, বিভিন্ন মেয়াদী আমানত ও সঞ্চয়পত্র থেকে প্রাপ্ত সুদ, বিক্রি, ব্যাংক থেকে প্রাপ্ত সুদ, সেবামূলক প্রতিষ্ঠান থেকে আয় এবং বিবিধ খাতে আয় দেখাতে হবে।

এছাড়া, কর্মীদের বেতন-ভাতা, আবাসন ও প্রশাসনিক খরচ, ডাক, টেলিফোন, ইন্টারনেট, কুরিয়ার সার্ভিস ও পত্রিকা বিল, বিদ্যুৎ, ওয়াসা, গ্যাসসহ বিভিন্ন ইউটিলিটি সার্ভিস ব্যয়, আপ্যায়ন ব্যয়, পোস্টারসহ বিভিন্ন মাধ্যমে প্রচারণার ব্যয়, যাতায়াত, প্রার্থীদের অনুদান, নির্বাচনী ব্যয় ও বিবিধ খাতের ব্যয় দেখাতে হবে।

প্রসঙ্গত, বর্তমানে ইসিতে নিবন্ধিত রাজনৈতিক দলের সংখ্যা ৪০টি। বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামী আগে নিবন্ধিত থাকলেও হাইকোর্টের এক আদেশে তা বাতিল করেছে ইসি। তাই ২০১৩ সাল থেকে দলটিকে কোনো চিঠি বা নির্দেশনা পাঠাচ্ছে না কমিশন।

এদিকে পরপর দু’বছর আয়-ব্যয়ের হিসাব ঠিকমত না দেয়ায় শেষ সুযোগ পাচ্ছে গণফ্রন্ট। এবার ৩১ জুলাইয়ের মধ্যে হিসাব জমা না দিলে দলটির নিবন্ধন বাতিল করবে ইসি।