September 18, 2021

দৈনিক প্রথম কথা

বাংলাদেশের জাতীয় দৈনিক

বিএসএফের হামলা রুখে দিল বিজিবি-জনতা

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি: জেলার কলারোয়ার মাদরা সীমান্তের বাংলাদেশ ভূখণ্ডের একটি গ্রামে শুক্রবার ভোরে হামলা চালায় ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী (বিএসএফ)। এসময় বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) ও জনতার তাড়া খেয়ে বিএসএফ একটি অস্ত্র ও নৌকা ফেলে পালিয়ে যায়।

এদিকে, এ ঘটনায় সীমান্তের মাদরা এলাকায় বিজিবি-বিএসএফের মধ্যে ব্যাটালিয়ন অধিনায়ক পর্যায়ে পতাকা বৈঠক শুরু হয়েছে। সীমান্তজুড়ে বিরাজ করছে উত্তেজনা।

বিজিবির মাদরা কোম্পানি কমান্ডার সুবেদার আবদুর রব বলেন, “শুক্রবার খুব ভোরে আকস্মিকভাবে বিএসএফের হাকিমপুর ক্যাম্পের কয়েকজন সদস্য একটি স্পিডবোট ও একটি দেশি নৌকায় প্রবল বৃষ্টির মধ্যে সোনাই নদীর বাংলাদেশ কূলে চলে আসে।”

তিনি আরো বলেন, “তাদের মধ্যে দুজন বিএসএফ সদস্য অস্ত্র নিয়ে বাংলাদেশ ভূখণ্ডে উঠে গ্রামবাসীকে কোনো কারণ ছাড়াই তাড়া করে। গ্রামবাসী তাদের প্রতিহত করার চেষ্টা করলে শুরু হয় মারামারি ও ধস্তাধস্তি। এতে কয়েকজন কম-বেশি আহত হয়।”

সুবেদার রব বলেন, “একপর্যায়ে বিজিবি সদস্যরা এগিয়ে এলে বিএসএফ সদস্যরা দ্রুত পালিয়ে যায়।”

তিনি বলেন, “এ সময় একজন সদস্য তার ব্যবহৃত ২০ রাউন্ড গুলিসহ একটি এসএলআর ও দেশি একটি নৌকা ফেলে রেখে যায়।”

বিজিবি সুবেদার আরো বলেন, “সীমান্তের প্রধান পিলার ১৩ এর সাব পিলার তিনের আওতায় রিভার পিলার ১১ এর  কাছে এ ঘটনা ঘটে। এ সময় সীমান্তে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে।”

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, গরুর রাখালরা বাংলাদেশে কয়েকটি ভারতীয় গরু নিয়ে এসেছে, এমন খবর পেয়ে সেগুলি ফিরিয়ে নেওয়ার উদ্দেশ্যে বিএসএফ বাংলাদেশ ভূখণ্ডে ঢুকে অতর্কিতে গ্রামবাসীর ওপর হামলা চালায়।

শেষ খবরে জানা গেছে, মাদরা সীমান্তে বিজিবির ৩৮ ব্যাটালিয়ন অধিনায়ক মেজর নজির আহমেদ বকসি ও বিএসএফের ১৫২ ব্যাটালিয়ন কমান্ড্যান্ট রাজেশ কুমার বিষয়টি নিষ্পত্তি করতে পতাকা বৈঠকে মিলিত হয়েছেন।