September 24, 2021

দৈনিক প্রথম কথা

বাংলাদেশের জাতীয় দৈনিক

‘শাকিব ছাড়া কার সঙ্গে সিনেমা করব’

নিজস্ব প্রতিবেদক : কয়েক বছর ধরে ঈদ মানেই শাকিব খান-অপু বিশ্বাস জুটির একাধিক নতুন সিনেমা। এবার তার ব্যতিক্রম হল। এই জুটির একটি সিনেমাই মুক্তি পেল। ‘লাভ ম্যারেজ’ নামের রোমান্টিক-এ্যাকশনধর্মী ছবিটি পরিচালনা করেছেন শাহীন সুমন।

‘শাকিব ছাড়া কার সঙ্গে সিনেমা করব’

বরাবরের মতো শাকিবের বিপরীতে নির্মিত সিনেমাটি নিয়ে অপু আশাবাদী।

অভিনয়ে বিরতির পর ফিরে এসে কী মনে হচ্ছে? কাউকে কি প্রতিদ্বন্দ্বী মনে হচ্ছে?

প্রমাণ তো দিয়েছি। আগের মতোই ব্যবসাসফল সিনেমা উপহার দিচ্ছি। দর্শক আবার আমাকে গ্রহণ করেছেন। আমি নিজেকে নতুনভাবে উপস্থাপনও করছি। যুগের সঙ্গে মানিয়ে চলছি। সেটা সিনেমার গল্প থেকে শুরু করে পোশাক নির্বাচনে। কেউ বলতে পারবে না আমি সস্তা উপায়ে জনপ্রিয়তা পাওয়ার চেষ্টা করেছি। এখন অনেক চলচ্চিত্র নির্মাণ হচ্ছে, খবর বের হচ্ছে। কিন্তু দিনের শেষে ফল কী সেটা নিয়েও ভাবছে না অনেকে। আমি কাজ দিয়ে নিজের জায়গাটা প্রতিষ্ঠিত করেছি। মনে করি না আমি কারো প্রতিদ্বন্দ্বী। তবে একটা প্রতিযোগিতা তো আছেই। ভাল কাজের জন্য এটা দরকারও।

শাকিব খান ছাড়া নায়িকা হিসেবে আপনি কতটা সম্পূর্ণ?

এটা খুবই আপেক্ষিক প্রশ্ন এবং আপত্তিকরও। আপনিই বলুন, শাকিব খান ছাড়া আমি আর কার সঙ্গে সিনেমা করতে পারি? এক নম্বর হিরোর সঙ্গে আমার জুটি। এটা স্বীকৃত ও প্রতিষ্ঠিত। আমরা একসঙ্গে অভিনয় করা মানে প্রযোজক নিশ্চিন্ত। দর্শক আমাদের একসঙ্গে দেখতে চায়— এ অবস্থায় আমি কী করতে পারি! আর সত্যি বলতে মাঝখানে অন্য নায়কদের সঙ্গে কিছু চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছি। এটাও ঠিক, দীর্ঘদিন ধরে শাকিবই আমার হিরো।

‘লাভ ম্যারেজ’ আপনার কততম চলচ্চিত্র?

এটা বলা মুশকিল। আনুমানিক হিসাবে এটা ৭০-৭৫ এর মধ্যে হবে। নায়িকা হিসেবে এতগুলো সিনেমায় অভিনয় করছি ভাবতে ভালই লাগে। তবে মনে হয় এইতো সেদিন প্রথম ক্যামেরার সামনে দাঁড়িয়েছি। এটা মনে পড়ছে যে, দেড়-দুই মাস পর আমার নতুন সিনেমা মুক্তি পাচ্ছে। সবশেষ ‘দুই পৃথিবী’ সিনেমায় অভিনয় করেছি।

দর্শক ‘লাভ ম্যারেজ’ দেখবেন কেন?

এটা শাকিব খানের সিনেমা। এটা অপু বিশ্বাসের সিনেমা। এই দুটি ছাড়াও আরও কিছু কারণ আছে। রোমান্টিক-এ্যাকশন ধাঁচের গল্পটিতে প্রচুর কমেডি রয়েছে। আমি এ জাতীয় চরিত্রে কমই অভিনয় করেছি। শাকিব আর আমার দুষ্টুমিগুলো দর্শক বেশ উপভোগ করবেন বলে বিশ্বাস। সিনেমাটিতে শাকিব খানকে পুরান ঢাকার তরুণ হিসেবে দেখা যাবে। ঢাকাইয়া ভাষায় তিনি সুন্দর অভিনয় করেছেন।

ঈদ ও ঈদের পরের ব্যস্ততা কী?

ঈদ ঢাকায় করেছি, পরিবারের সঙ্গে। ঈদের দিন ‘লাভ ম্যারেজ’ দর্শকের সঙ্গে দেখেছি। ঢাকার একাধিক প্রেক্ষাগৃহেও হাজিরা দিয়েছি। ‘রাজাবাবু’ সিনেমার শুটিংয়ের জন্য দেশের বাইরে যাওয়ার পরিকল্পনা আছে। তারিখ এখনো চূড়ান্ত হয়নি। এর পাশাপাশি ‘সম্রাট’ এর শুটিংয়েও অংশ নেব।