January 29, 2022

দৈনিক প্রথম কথা

বাংলাদেশের জাতীয় দৈনিক

তৌহিদুরের গ্রেফতার নিয়ে যা জানালো আল-জাজিরা

ডেস্ক প্রতিবেদন : ব্লগার ও বিজ্ঞান লেখক অভিজিৎ রায় হত্যার ‘মূল হোতা’ তৌহিদুর রহমান গ্রেফতার বিষয়ে একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে আল জাজিরা। সেখানে তৌহিদুরকে গত ২৮ মে আটকের বিষয়ে বিভিন্ন তথ্য দেওয়া হয়।

বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত ব্রিটিশ নাগরিক তৌহিদুরের বোন ও তাদের বাড়ির নিরাপত্তারক্ষীর বরাত দিয়ে এসব তথ্য প্রকাশ করা হয়।

প্রতিবেদনে বলা হয়, বোন নাসেরা বেগম গোয়েন্দা পুলিশ কর্তৃক তৌহিদকে তুলে নিয়ে যাওয়ার বিষয়ে স্থানীয় থানায় অভিযোগ করেছিলেন। তিনি জুনের ৩ তারিখ ব্রিটিশ হাই কমিশনকেও বিষয়টি অবহিত করেছিলেন।

বাড়ির নিরাপত্তারক্ষী মাহের আলি আল-জাজিরাকে বলেন, ২৮ মে চার ব্যক্তি গেটের সামনে এসে আমাকে বলে তাদের তৌহিদুরের ফ্ল্যাটে নিয়ে যেতে। আমি কেয়ারটেকার স্বপন বড়ুয়াকে খবর দেই।

স্বপন বড়ুয়া জানান, তিনি এগিয়ে গিয়ে দেখতে চান কী ঘটেছে। তৌহিদুরের ফ্ল্যাটে প্রবেশের চেষ্টা করলেও তাকে বাধা দেওয়া হয়।

তিনি বলেন, আমি ঢুকতে না পেরে নিচে চলে যাই এবং ইন্টারকম দিয়ে তৌহিদুরকে ফোন দিয়ে জিজ্ঞাসা করি যে লোকগুলো কারা ছিল। তিনি আমাকে বলেন তারা প্রশাসনের। আমি তার বোনকে ফোন দেওয়ার পরামর্শ দেই।

বোন নাসিরা বলেন, তিনি কাজ করার সময় সেদিন একটি ফোন পান। তার ভাই জানান, কিছু মানুষ তাকে নিতে এসেছে। আমি তাদের সঙ্গে কথা বলতে চাই। তাদের একজন আমাকে বলে, আমার ভাইকে আধা ঘণ্টার জন্য জিজ্ঞাসাবাদ করতে নিয়ে যাওয়া হবে। আমি তখন বলি, সে অসুস্থ তাকে এখন নিয়ে যাবেন না। আমি তার নাম জানতে চাইলে তিনি ফোন রেখে দেন।

এ ছাড়া সাদেক আলী মিঠু এবং আমিনুল মলিককে ব্লগার হত্যার অভিযোগে আটক করে র‌্যাব। গত বুধবার জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তাদের তিনজনকে সাতদিনের পুলিশ হেফাজতে রাখার নির্দেশ দেন আদালত।

আল-জাজিরা জানায়, ব্রিটিশ হাইকমিশনের এক মুখপাত্র এ বিষয়ে বলেন, আমরা শুধু বলতে পারি আমরা একজন ব্রিটিশ নাগরিককে সহায়তার চেষ্টা করছি।

তৌহিদুরের ছোট ভাই ওয়াহিদুর রহমান বলেন, আমি জানতে চাই ৮১ দিন আমার ভাইকে কোথায় রাখা হয়েছিল।