July 1, 2022

দৈনিক প্রথম কথা

বাংলাদেশের জাতীয় দৈনিক

বৃষ্টিতে বিপাকে গরু ব্যবসায়ীরা

নিজস্ব প্রতিবেদক : টানা দুই দিনের বৃষ্টিতে বিপাকে পড়েছেন গরু ব্যবসায়ীরা। একদিকে বৃষ্টিতে হাটে পানি জমেছে, অন্যদিকে গরুর রোগবালাই নিয়ে শঙ্কা, ভিড় নেই ক্রেতাদেরও। সব মিলিয়ে চিন্তায় পড়ে গেছেন গরুর বেপারীরা। রোববার বিকেলে রাজধানীর মেরাদিয়া বাজার অস্থায়ী পশুর হাট ঘুরে দেখা গেছে এমন চিত্র।

sonirakharaহাট ঘুরে দেখা গেছে, প্রবল ‍বৃষ্টিতে গরুর হাটে পানি জমে গেছে। বৃষ্টিতে গরু এবং খাবার ভিজে যাওয়ায় করুণ অবস্থা সৃষ্টি হয়েছে। এছাড়াও বিভিন্ন জায়গায় কাঁদায় স্যাতস্যাতে অবস্থা। যেখানে হেঁটে চলাচল করাটাই দুরূহ হয়ে পড়েছে।

এ বিষয়ে মেরাদিয়া হাটের ইজারাদার আমিনুল ইসলাম মিঠু জানায়, বৃষ্টির কারণে হাটের করুণ অবস্থা। বৃষ্টিতে হাটে ক্রেতা-বিক্রেতা উভয়েই বিড়ম্বনায় পড়েছে। এছাড়া নিরাপত্তাসহ অন্যান্য সব ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। যেসব স্থানে পানি জমেছে তা দ্রুত সরানোর ব্যবস্থা করা হচ্ছে।

বৃষ্টিতে ব্যবসায়ীদের থাকার সম্পর্কে তিনি বলেন, ব্যবসায়ীরা নিজ নিজ উদ্যোগে পলিথিন ও ত্রিপল দিয়ে থাকার ব্যবস্থা করে নিয়েছে। এছাড়া আমাদের হাট কমিটির পক্ষ থেকেও কিছু ব্যবস্থা করে দেয়া হচ্ছে। এটি নতুন এলাকা তাই রাতে ব্যবসায়ীরা নিরাপত্তায় থাকবে, আশা করছি কোনো সমস্যা হবে না।

চুয়াডাঙ্গা থেকে গরু নিয়ে আসা ব্যবসায়ী আব্দুল জব্বার জানান, শনিবার রাতে গরু নিয়ে এসেছি। বৃষ্টিতে অবস্থা খারাপ। এ পর্যন্ত কোনো ক্রেতার দেখা নেই। গরু ভিজে যাচ্ছে। পলিথিন দিয়ে রেখেছি। গরু ভিজে গেলে ঠান্ডা লেগে যেতে পারে। এছাড়া কোনো রোগবালাই হলে গরু বিক্রি করা যাবে না। সব মিলিয়ে চিন্তায় আছি।

রোববার মেরাদিয়া হাটের সবচেয়ে বড় গরুর মালিক কুষ্টিয়ার বেপারী রফিক বলেন, হাটে গরুগুলোর মধ্যে আমার গরু সবচেয়ে বড়। আমি সাড়ে তিন লাখ টাকা দাম চেয়েছি। এখনো বিক্রির মতো কেউ দাম বলেনি। এছাড়াও আমি হাটে আরো পাঁচটি গরু নিয়ে এসেছি। বৃষ্টির কারণে ক্রেতা কম। তবে আশা করছি সব কয়টিই বিক্রি করতে পারবো।