June 30, 2022

দৈনিক প্রথম কথা

বাংলাদেশের জাতীয় দৈনিক

শ্রীলঙ্কাকে ১৪৮ রানের চ্যালেঞ্জ

ক্রীড়া প্রতিবেদক : ভারতের বিপক্ষে প্রথম ম্যাচে ৪৪ রানের লড়াকু ইনিংস খেলে এশিয়া কাপের শুরুটা দারুণভাবে করেছিলেন সাব্বির রহমান। আরব আমিরাতের বিপক্ষে ম্যাচে ব্যর্থ হলেও আজ শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে দারুণভাবে জ্বলে উঠেছেন এই ডানহাতি ব্যাটসম্যান। ১০টি চার ও ৩টি ছয় মেরে খেলেছেন ৫৪ বলে ৮০ রানের ক্যারিয়ারসেরা ইনিংস। সাব্বিরের দারুণ ব্যাটিংয়ে ভর করে বাংলাদেশও পেয়েছে লড়াই করার মতো পুঁজি। শ্রীলঙ্কাকে ছুড়ে দিয়েছে ১৪৮ রানের চ্যালেঞ্জ।
টস জিতে ব্যাট করতে নেমে বাংলাদেশের শুরুটা অবশ্য ভালো হয়নি। রানের খাতা না খুলেই সাজঘরে ফিরেছিলেন দুই ওপেনার মোহাম্মদ মিথুন ও সৌম্য সরকার। প্রথম ওভারের দ্বিতীয় বলেই এলবিডব্লিউ হয়ে সাজঘরে ফিরেছেন মিথুন। পরের ওভারে নুয়ান কুলাসেকারার বলে মিড অফে ক্যাচ দিয়ে ফিরে গেছেন সৌম্য। তৃতীয় উইকেটে ২৪ রানের জুটি গড়ে ঘুরে দাঁড়ানোর ইঙ্গিত দিয়েছিলেন সাব্বির ও মুশফিকুর রহিম। কিন্তু পঞ্চম ওভারে তড়িঘড়ি করে রান নিতে গিয়ে রানআউট হয়েছেন মুশফিক। সেসময় বাংলাদেশের স্কোর ছিল : ২৬/৩।
প্রথম পাঁচ ওভারের মধ্যে তিনটি উইকেট হারিয়ে চাপের মুখে পড়লেও দুর্দান্ত ব্যাটিং করে ঘুরে দাঁড়িয়েছেন সাব্বির ও সাকিব আল হাসান। চতুর্থ উইকেটে ৮২ রানের জুটি গড়েছেন এই দুই ব্যাটসম্যান। ১৬তম ওভারের শেষ বলে ৮০ রান করে আউট হয়েছেন সাব্বির। টি-টোয়েন্টিতে বাংলাদেশের পক্ষে এটি চতুর্থ সর্বোচ্চ ইনিংস। ২০১২ সালে সর্বোচ্চ ৮৮ রানের ইনিংসটি খেলেছিলেন তামিম ইকবাল। ১৮তম ওভারে আউট হওয়ার আগে সাকিবের ব্যাট থেকে এসেছে ৩২ রান। শেষপর্যায়ে মাহমুদউল্লাহর ২৩ রানের ইনিংসও ভালো অবদান রেখেছে বাংলাদেশের বড় সংগ্রহের পেছনে।
ইনজুরির কারণে বাংলাদেশের বিপক্ষে ম্যাচে মাঠে নামতে পারেননি শ্রীলঙ্কার নিয়মিত অধিনায়ক লাসিথ মালিঙ্গা। তাঁর পরিবর্তে শ্রীলঙ্কাকে নেতৃত্ব দিচ্ছেন অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউস। দলে কোনো পরিবর্তন না এনেই শ্রীলঙ্কার মুখোমুখি হয়েছে বাংলাদেশ।
টি-টোয়েন্টিতে এর আগের চারটি মুখোমুখি লড়াইয়ে একটিতেও জয় পায়নি বাংলাদেশ। আজ প্রথমবারের মতো শ্রীলঙ্কা বধের লক্ষ্য নিয়েই মাঠে নামছে মাশরাফি বাহিনী। এই ম্যাচ জিততে পারলে ফাইনালের পথেও অনেকখানি এগিয়ে যাবে তারা।
বাংলাদেশ দল : সৌম্য সরকার, মোহাম্মদ মিথুন, সাব্বির রহমান, মুশফিকুর রহিম, সাকিব আল হাসান, মাহমুদউল্লাহ, নুরুল হাসান, মাশরাফি বিন মুর্তজা, তাসকিন আহমেদ, আল-আমিন হোসেন, মুস্তাফিজুর রহমান।