September 30, 2022

দৈনিক প্রথম কথা

বাংলাদেশের জাতীয় দৈনিক

জাতি খুব শিগগির তনু হত্যার প্রকৃত ঘটনা জানতে পারবে

নিজস্ব প্রতিবেদক : র‌্যাবের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (অপস) কর্নেল জিয়াউল আহসান বলেছেন, জাতি খুব শিগগির তনু হত্যার প্রকৃত ঘটনা জানতে পারবে। ভিসেরা টেস্টের প্রথম প্রতিবেদনে তনুকে ধর্ষণের কোনো আলামত পাওয়া যায়নি। এখন অন্যান্য পরীক্ষার প্রতিবেদনগুলোর মাধ্যমে প্রকৃত ঘটনা জানা যাবে।
বুধবার রাতে শিল্পকলা একাডেমি মিলনায়তনে বাংলাদেশ ক্রাইম রিপোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশনের (ক্র্যাব) নবনির্বাচিত কমিটির অভিষেক অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন জিয়াউল আহসান।
কর্নেল জিয়া বলেন, ‘তনু হত্যার পর একটি ফেইক ছবি পোস্ট করা হয়। যেটি গত বছর ভিয়েতনামে ছাপানো হয়। সেই মেয়ের ছবি তনু হিসেবে চালিয়ে দেওয়া হয়। যার দরুণ দেশবাসী ফুঁসে উঠেছে। কথা সেটি নয়, কথা হচ্ছে, সবকিছুর পর যদি দেখা যায় যে তনুকে ধর্ষণ করা হয়নি, তবে তার প্রতি মিথ্যা অপবাদ দেওয়া হলো না? তনুর বাবা-মা তো বারবার বলেছে এ রকম কিছু আমরা মনে করছি না। এরপরেও কেন এত মাতামাতি হচ্ছে? সবাই তদন্ত করছে, দেখা যাক, কী সত্য বেরিয়ে আসে।’
তিনি বলেন, জাতির স্বার্থে অনেক কিছু হাইড করে চলতে হয়। সবকিছু গণমাধ্যমে আসা ঠিক না। ভারতে ২৪ পুলিশ সদস্যের ফাঁসি হয়েছে। কই কোথাও তো সংবাদ ছাপানো হলো না। কলকাতায় নির্মাণাধীন ফ্লাইওভার ধসে মানুষ মরেছে, কই তার তো কোনো ভিডিও ইউটিউবে পাওয়া যাচ্ছে না। আর আমাদের দেশে সামান্য কিছু হলেই ভিডিওর শেষ নেই।’
তিনি ক্রাইম রিপোর্টারদের প্রশংসা করে বলেন, ‘সাংবাদিক জগতে যারা ক্রাইম রিপোর্টিং করেন তাদের মতো সর্বদা ব্যস্ত আর কোনো সাংবাদিক থাকে না। আপনারা জাতিকে পাহারা দেন। কোথায় কী অন্যায় হচ্ছে, তাও খুঁজে বের করেন। এমনকি র‌্যাব-পুলিশকেও পাহারা দেন। ফলে সবাই ব্যালেন্সড অবস্থায় থাকতে পারছি।’